জাতিরপিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্ম শতবর্ষ ও বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের ৭১ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার নানামূখী কর্মসূচির অংশ হিসাবে সারাদেশে ১ কোটি গাছ লাগানোর নির্দেশনা দেন। 
সেই নির্দেশনা বাস্তবায়নে বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সভাপতি আল নাহিয়ান খান জয় ও বিপ্লবী সাধারণ সম্পাদক লেখক ভট্টাচার্য ঘোষণা করেন তিন মাসব্যাপী মুজিব বর্ষের আহবান, ৩ টি করে গাছ লাগান কর্মসূচি।

এই  কর্মসূচির অংশ হিসাবে শেরপুরের কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ নেতা ও জেলা পরিষদের সুযোগ্য চেয়ারম্যান জনাব হুমায়ুন কবির রুমানের  ভাগ্নে মুজিবুর রহমান, শেরপুর জেলা ছাত্রলীগ ও কলেজ ছাত্রলীগের নেতৃবৃন্দের সহযোগীতায় বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি বাস্তবায়ন করেন। 

এই সময় ছাত্রলীগ নেতা মুজিব টেক সলিডারকে বলেন,  জননেত্রী শেখ হাসিনা আপা ও বাংলাদেশ ছাত্রলীগ ও আমাদের অবিভাবক জয় ভাই ও লেখক দা'র যেকোন নির্দেশ বাস্তবায়নে আমরা প্রতিজ্ঞাবদ্ধ। বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা বাস্তবায়নে দেশরত্ন শেখ হাসিনা আপা ও ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় নেতৃত্বের এই প্রচেষ্টা সফল হবে এবং এ কার্যক্রম শেরপুরের বিভিন্ন ওয়ার্ড, ইউনিয়নে পর্যায়ক্রমে বাস্তবায়ন করা হবে।
এ সময় জেলা ছাত্রলীগের অন্যতম নেতা শাহিদুর রহমান শাহিন, জহির রায়হান,জনি, সৌরভ, শেরপুর সরকারি কলেজের সভাপতি নয়ন তালুকদার, সাধারন সম্পাদক আব্দুল কুদ্দুস, সাংগঠনিক সম্পাদক তানভীর পাপ্পু, সুমন, আবু হানিফ, বিপুল, মুক্তাদির, রতন, লোকমান, রহুল, আমিন সহ কলেজ, শহর ও সদর থানা ছাত্রলীগের অনেক নেতা কর্মী ব্যপক উৎসাহ ও উদ্দীপনা নিয়ে অংশগ্রহণ করেন। উল্লেখ্য শেরপুরের বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ স্থানে তারা প্রায় ৭১ ফলদ ও বনজ বৃক্ষের চারা রোপণ করেন এবং এই কর্মসূচি এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন।